সর্বশেষ সংবাদ

নবাবগঞ্জে সন্তান হওয়ার প্রলোভন দেখিয়ে শরবত পানে নিঃস পরিবার

 

মোঃ নাজমুল হোসেন
স্টাফ রিপোর্টার
24khobor.com

নবাবগঞ্জ উপজেলার এক ব্যাবসায়ী পরিবারকে শরবত পান করিয়ে অজ্ঞান করে সর্বস্ব লোট করে নিয়েগেছে এক ভন্ড কবিরাজ। গত মঙ্গলবার রাতে উপজেলা বাহ্রা ইউনিয়নের পশ্চিম চর বাহ্রা গ্রামে এই ঘটনা ঘটে।

আহতরা হলেন আব্বাল আলী (৪০), তার ভাই আজাদ (৪২), বোন হোসনেয়ারা (৫০), মা আনোয়ারা খাতুন (৭০) আব্বাসের স্ত্রী শারমীন ও আত্মীয় ছমিরুল ইসলাম (২০)।

জানাযায়, আব্বাস আলী ও শারমীন দম্পত্তির ৭-৮ বছর ধরে বিয়ে হয়েছে কিন্তু কোনো সন্তান হয়নি। এর জন্য তারা অনেক ধরনের চিকিৎসা সেবা গ্রহন করেছেন কিন্তু কোনো ফল পাননি।
গত রবিবার সকালে এক বৃদ্ধ কবিরাজ বাড়িতে এসে শারমিনকে সন্তান হওয়ার প্রলোভন দেখায়। কবিরাজের কথা বিশ্বাস করে সুখের আলো দেখার স্বপ্ন নিয়ে নিজ বাড়িতে থাকতে দেয় স্ত্রী।

মঙ্গলবার রাতে সবাইকে এক সাথে ডেকে সকলকে শরবত পান করান ভন্ড কবিরাজ। শরবত পান করলে তারা সবাই অজ্ঞান হয়ে যায়। ফলে এই সুযোগটি কাজে লাগিয়ে ভন্ড কবিরাজ ব্যাবসায়ীর ঘরথেকে ২০ ভরি স্বর্নালঙ্কার ও জমি বিক্রির ১০ লক্ষ টাকা লোট করে পালিয়ে যায়।

সকালে প্রতিবেশীরা ব্যবসায়ী সহ সকলকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেস্কে নিয়ে যায়।

উপজেলার কর্তব্যরত চিকিৎসক ফকরুজ্জামান জানান, শরবতের মধ্যে ঘুমের বড়ি মিশিয়েছে বলে ধারনা করা হচ্ছে।
নবাবাগঞ্জ থানার এসআই শফিকুল ইসলাম সুমন বলেন, এ ব্যাপারে ভুক্তভোগীর পরিবার থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন। তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।



Related posts

মন্তব্য করুন