সর্বশেষ সংবাদ

কেরানীগঞ্জে পালিত হলো ২রা এপ্রিল গণহত্যা দিবস

Image may contain: 2 people, people smiling, people sitting and text

মোঃ মাসুদ কেরানীগঞ্জ প্রতিনিধি।

২রা এপ্রিল ঢাকা কেরানীগঞ্জে গনহত্যা দিবস পালিত এবং আয়োজন করেন কেরানীগঞ্জ আওয়ামীলীগ সহ বিভিন্ন সহযোগী সংগঠন। ১৯৭১সালের ২রা এপ্রিলের শহীদদের স্মরনে স্মৃতিস্তম্ভে পুষ্পার্পনের মাধ্যমে শ্রদ্ধা নিবেদন করে দিবসটি যথাযোগ্য মর্যাদায় পালন করেছে কেরানীগঞ্জবাসী।

কেরানীগঞ্জে পালিত হলো ২রা এপ্রিল গণহত্যা দিবস

দিবসের অন্যান্য কর্মসূচীর মধ্যে ছিল মিলাদ মাহফিল -দোয়া মোনাজাত, গণভোজ ,কালোব্যাজ ধারণ ও কালো পতাকা উত্তোলন। ১৯৭১ সালের ২রা এপ্রিল ভোররাতে পাক হানাদার বাহিনী কেরানীগঞ্জের ৫ সহস্রাধিক নিরীহ মানুষকে নির্বিচারে গুলি চালিয়ে হত্যা করে। পুড়িয়ে দেয় শত শত বাড়িঘর। কেরানীগঞ্জের মানুষ এ ভয়াবহ রাতের কথা স্মরন করে আজও শিউরে উঠে। পাক হানাদার বাহিনী মেশিনগান, মর্টার, ও ভারি যুদ্ধাস্ত্র নিয়ে ঝাপিয়ে পড়ে ঘুমন্ত লোকজনের ওপর। কিছু বুঝে উঠার আগেই কেরানীগঞ্জ পরিনত হয় রক্তাক্ত এক জনপদে । সে ভয়াল রাতে কলাতিয়া জিনজিরা, নজরগঞ্জ, নেকরোজবাগ, শুভাঢ্যা, মুনবেপারীরঢাল, কালিন্দী,, আটিভাওয়ালসহ বিভিন্ন এলাকায় পাক বাহিনী নির্বিচারে গনহত্যা চালায়। দিনটির তাৎপর্য তুলে ধরে উপজেলা পরিষদ, উপজেলা প্রশাসনসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠন গণভোজ, মিলাদ মাহফিল, বাড়িতে বাড়িতে কালো পতাকা উত্তোলন, কালো ব্যাজ ধারনসহ বিভিন্ন কর্মসূচী পালন করেছে। সকাল ৮টায় মনুবেপারীর ঢালে স্থাপিত শহীদ স্মৃতিস্তম্ভে প্রথমে ঢাকা-২ আসনের সাংসদ খাদ্যমন্ত্রী এ্যড.কামরুল ইসলাম ও পরে ঢাকা-৩ আসনের সাংসদ বিদ্যুৎ , জ্বালানী ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ বিপু’র পক্ষে ফুলের তোড়া দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন উপজেলা আওয়ামী লীগের আহবায়ক ও উপজেলা চেয়ারম্যান শাহীন আহমেদের নেতৃত্বে উপজেলা আওয়ামী লীগ ও তার সকল সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ। এসময় অন্যান্যের মধ্যে আরোউপস্থিত ছিলেন উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার মো: শাহজাহান, ঢাকা জেলা ছাত্রলীগ সাধারন সম্পাদক মনির হোসেন রাজিব, জিনজিরা ইউপি চেয়ারম্যান হাজী সাকুর হোসেন সাকু, রুহিতপুর ইউনিয়ন চেয়ারম্যান আব্দুল আলী, কালিন্দী ইউপি চেয়ারম্যান হাজী মোজাম্মেল হোসেন, তারানগর ইউপি চেয়ারম্যান মোশারফ হোসেন ফারুক,হযরতপুর ইউপি চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেন আয়নাল,বাস্তা ইউপি চেয়ারম্যান হাজী মো.আশকর আলী প্রমুখ। এরপর উপজেলা আওয়ামী লীগ ও তার সকল সহযোগী সংগঠনের উদ্যোগে মিলাদ মাহফিল ও দোয়া মোনাজাতের আয়োজন করা হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন খাদ্যমন্ত্রী এ্যড.কামরুল ইসলাম,বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা আওয়ামী লীগের আহবায়ক ও উপজেলা চেয়ারম্যান শাহীন আহমেদ। পরে জিনজিরা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ ও তার সকল সহযোগী সংগঠনের উদ্যোগে সেখানে এক গণভোজের আয়োজন করা হয়।



Related posts

মন্তব্য করুন