সর্বশেষ সংবাদ

দোহারে হাইব্রিট জাতের দুন্দলের বাম্পার ফলন


আবুল হাশেম ফকির।

ঢাকা দোহারের কুসুমহাটী ইউনিয়নের কার্তিকপুর গ্রামের প্রান্তিকচাষী আব্দুর রশিদ দুন্দলের চাষ করে নিজের ভাগ্য বদল করেছেন।নিজের জমি বলতে ৪০ শতাংশ জায়গা।প্রতিবছর শীতকালে ঢেড়স,বেগুন,লাউ (পানি কদু)মুলা,দুন্দল সহ শীতকালীন শাক সবজি চাষ করেন।

দোহারে হাইব্রিট জাতের দুন্দলের বাম্পার ফলন

নিজ উদ্যোগেই প্রতিবছর ৪০/৪৫ শতাংশ জমিতে হাইব্রিড বীজের মাধ্যমে উন্নত ফলন পেয়ে থাকেন।তার সাথে কথা বলে জানা যায়,এবছর ফুজিয়ান-লালতীব নামক হাইব্রিট (দুন্দল)বিজের সন্ধান পান এবং উপজেলা কৃষি অফিস থেকে সংগ্রহ করে নিজ উদ্যোগে দুন্দলের চাষ করে বাম্পার ফলন ফলাতে সফল হোন।প্রতিদিন ৪০ থেকে ৫০ কেজি পর্যন্ত স্থানীয় বাজার গুলোতে বাজারজাত করে ৬০/৭০ হাজার টাকার দুন্দল বিক্রি করেছেন গ্রাম-বাংলার আলোচিত কৃষক আব্দুর রশিদ। তার এ উদ্যোগ দেখে এলাকার অনেকেই বাড়ির আঙিনা ও নিজের জমিতে সবজি চাষে আগ্রহ প্রকাশ করছেন।এতে কর্মসংস্থানের সৃষ্টি হচ্ছে অনেকের।নিজের জমির উৎপাদিত দুন্দল, বেগুন, টমেটো, মুলা,লাউ প্রতি বছরেই মৌসুমের সবজী দোহার উপজেলার বিভিন্ন বাজারে পাইকারি দেওয়া হয়।এছাড়া রাজধানীর ঢাকাতেও যেতে শুরু করেছে।দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নে ভবিষ্যতে সরকারি সহযোগিতা পেলে ভূমিকা রাখবে বলেও মনে করেন এ প্রান্তিক চাষি আব্দুর রশিদ।



Related posts

মন্তব্য করুন