সর্বশেষ সংবাদ

“ভ্যাম্পায়ারের কবর” মাটি খুঁড়ে পাওয়া গেল

0-1বিজ্ঞানের যুগে সব কিছুই প্রমাণসাপেক্ষ। ভূত-প্রেত আছে কিনা, তর্কের বিষয়। যেখানে বিশ্বাস-ই শেষ কথা। যে যার নিজের দাবিতে অটল। কিন্তু খোদ প্রত্নতত্ত্ববিদদের চোখের সামনে যদি একের পর এক ভ্যাম্পায়ারের অস্তিত্ব প্রকট হয়? না। ছুটির রাতে কোনও গাঁজাখুরি গল্প ফেঁদে বসার কোনও মতলব নেই। ব্রিটেনের একাধিক প্রথমসারির দৈনিকে খবরটি প্রকাশিত হতেই রীতিমতো নড়েচড়ে বসেছেন বিজ্ঞানীরা। একের পর এক কবরে শুধুই সারি দিয়ে শুয়ে রয়েছে সেই রক্তচোষা অশরীরী। প্রত্নতত্ত্ববিদরা যতই মাটি খুঁড়ছেন, আবিষ্কার হচ্ছে ভয়াবহ দেহ।

দক্ষিণ বুলগেরিয়ার প্রাচীন শহর পারপেরিকন। গ্রিস ও তুর্কমেনিস্তানের সীমান্তে। সেই শহরের উপকণ্ঠে ধূ-ধূ প্রান্তরে সম্প্রতি খননকার্য শুরু করেন বিখ্যাত প্রত্নতত্ত্ববিদ নিকোলাই ওভাচারভ। ব্রিটেনের দৈনিক ‘দ্য টেলিগ্রাফ’ ও ‘হাফিংটন পোস্ট’-এ প্রকাশিত খবর অনুয়ায়ী, খননকার্য চলাকানীই হঠাত্‍ কিছু হাড়গোড় দেখতে পান ওভাচারভ। স্থানীয় প্রশাসনকে খবর দেওয়া হয়। মাটি সরতেই চোখ কপালে ওঠার জোগাড়। সেই বুক কাঁপানো পরিচিত দৃশ্য। কঙ্কালের বুকে একটি ধাতব দণ্ড। ভ্যাম্পায়ারকে নিকেষ করতেই ব্যবহৃত হয় এই ধরনের ধাতব দণ্ড। সাধারণত অতৃপ্ত আত্মা কফিন ছেড়ে উঠে আসা শুরু করলেই, খ্রিস্টান ধর্মাবলম্বীরা দিনের বেলায় মাটি খুঁড়ে ওই ধাতব দণ্ড মৃতদেহের বুকে রেখে দেন।। দ্য টেলিগ্রাফ-কে দেওয়া একটি সাক্ষাত্‍কারে নিকোলাই ওভচারভ বলেছেন, ‘এ বিষয়ে কোনও সন্দেহ নেই প্রত্যেকটি দেহেই ভ্যাম্পায়ার নিকেষ করার জন্য ধর্মীয় আচার করা হয়েছে।। সাধারণত এই পরলৌকিক ক্রিয়া সেই সব দেহেই করা হয়, যাঁদের অস্বাভাবিক মৃত্যু হয়। যেমন, আত্মহত্যা, সাপের কামড় ইত্যাদি। ‘

বুলগেরিয়ার সংবাদমাধ্যমের তথ্য অনুযায়ী, ওই ভ্যাম্পায়ার কবরস্থানে দুটি দেহের মধ্যে একটি দেহে দেখা যাচ্ছে, এক প্রাপ্তবয়স্ক মহিলার কঙ্কাল ও একটি বাচ্চার কঙ্কাল। দুটি কঙ্কাল নিজেদের জড়িয়ে ধরে রয়েছে। মা যেমন তাঁর সন্তানকে জড়িয়ে ধরেন। দু’জনেরই বুকে লোহার দণ্ড। ওভাচারভের অনুমান, কবরগুলি ত্রয়োদশ শতাব্দির মাঝামাঝি সময়ের। তবে বুলগেরিয়ায় এই ধরনের ঘটনা এটাই প্রথম নয়। এর আগে ২০১২ সালেও বুলগেরিয়ার সোজোপল শহরে প্রত্নতত্ত্ববিদরা দু’টি কবর উদ্ধার করেছিলেন। ওই দেহগুলিতেও বুকের উপর ছিল সেই ধাতব দণ্ড। বিবিসি-র রিপোর্ট বলছে, বুলগেরিয়ার সীমান্তবর্তী এলাকায় এখনও পর্যন্ত ১০০টি ভ্যাম্পায়ার কবর পাওয়া গিয়েছে।



Related posts

মন্তব্য করুন